বিশ্বে ইসলাম নিয়ে অপপ্রচারের বিরুদ্ধে সংলাপে মুসলিম নেতারা


আন্তর্জাতিক ডেস্ক

আরটিএনএন

আমস্টারডাম:  ইসলাম যে আসলেই শান্তি প্রিয় ধর্ম এবং এই ধর্মের বিরুদ্ধে যে অপপ্রচার চলছে তা মুসলিমসহ অন্যান্য ধর্মের মানুষদের বুঝাতে সংলাপ চালিয়ে যাচ্ছেন আমস্টারডামের মুসলিম কমিউনিটি।

গত এক মাসেরও বেশি সময় ধরে মুসলিম সম্প্রদায়ের নেতারা আমস্টারডামের ‘ফ্রেস ব্যাসিলে’ তাদের ধর্ম সম্পর্কে সাপ্তাহিক আলোচনা শুরু করেছেন। এতে বিভিন্ন ধর্ম ও জাতিগোষ্ঠীর মানুষেরাও এতে যোগ দিচ্ছেন।

মুসলিম কমিউনিটির অন্যতম সেতা সোহা মাহমুদ বলেন, ‘আমি তাদের বুঝাতে চেষ্টা করছি যে, আমরা আসলেই শান্তিপূর্ণ এবং ইসলাম ধর্ম সম্পর্কে তারা যা মনে করছে এটা আসলে তা নয়। এই সত্যিটিই আমরা তাদের বুঝানোর চেষ্টা করছি।’

আমস্টারডামের বাসিন্দা ক্যাথলিক মারিয়া রোমান বলেন, ‘আমি বুঝতে পেরেছি বাইবেল ও কোরআনে মূল্যবোধ সম্পর্কে একইরকম শিক্ষা দেয়; যা আমরা একে অপরের সঙ্গে শেয়ার করি এবং এটি ইসলামের মধ্যেও দেখতে পেয়েছি।’


আমেরিকার আলবেনি চ্যাপ্টারের আহমদীয়া মুসলিম কমিউনিটির প্রেসিডেন্ট ডঃ হাফিজ রেহমান বলেন, ‘আমেরিকানদের চোখে মুসলিম বিশ্বাস বোঝানো খুব সহজ কাজ নয়।’

ডঃ রেহমান বলেন, ‘আমরা মুসলমানদের গোঁড়ামির বিরুদ্ধে লড়াই করার চেষ্টা করছি।’

তিনি বলেন, ‘চরমপন্থীদের দ্বারা আমাদের বিশ্বাস হাইজ্যাক হয়েছে। আর আমরা তা ফিরিয়ে আনতে চাই। মূলত ইসলামি বিশ্বাসে সন্ত্রাসবাদ বা সহিংসতার কোনো মূল্য নেই।’

ডঃ রেহমান জানান, গত ১১ সেপ্টেম্বর থেকে আন্তর্জাতিক সংগঠন হিসেবে আমরা অনুরূপ প্রচারণা চালিয়ে আসছি।


যাইহোক, চরমপন্থা ও রাজনৈতিক উত্তেজনার বিভিন্ন বিষয় ও ইসলামের সত্য নিয়ে এখানে আলোচনা করা হয়ে থাকে।

আমস্টারডামের বাসিন্দা জোজানা ডাফি বলেন, ‘আমি এক মুসলমান দম্পতির সঙ্গে মেলামেশার পর বুঝতে পেরেছি তারা আমাদের মতো্ই স্বাভাবিক মানুষ।’

নূহ আহমদ একজন ক্যাথলিক হিসেবে বেড়ে ওঠেন এবং ২০০৫ সালে ইসলাম ধর্মে দীক্ষিত হন।

তিনি বলেন, ‘আমাদের লক্ষ্য জনগণের মাঝে একটি সেতু তৈরি করা যাতে আমরা পরস্পর একত্র থাকতে পারি। একই সঙ্গে মানবতার সেবা করাও আমাদের অন্যতম লক্ষ।’

গ্লেন্স ফলসের ক্যাথলিক কেলেননি কেনেডি বলেন, ‘এই আলোচনার মাধ্যমে ইসলাম সম্পর্কে আমার উপলব্ধির পরিবর্তন হয়েছে।’

কেলেননি কেনেডি বলেন, ‘আমি শুধু টিভিতে মুসলমানদের দেখেছি; যেখানে তাদের শুধু সন্ত্রাসী ও মন্দ মানুষ হিসেবে চিত্রিত করা হয়ে থাকে। আমার মতে তারা সবচেয়ে শান্তি প্রিয় ও শান্ত প্রকৃতির মানুষ।’

গ্রুপটি আগামী সপ্তাহে গ্লেন্স ফলস ও আলবেনিতে তাদের আলোচনা শুরু করবে। তারা অন্তত বসন্তকাল পর্যন্ত এই বৈঠক চালিয়ে যাওয়ার পরিকল্পনা নিয়েছেন।

সূত্র: ওয়ন্ট ডটকম